.“...ঝড়ের মুকুট পরে ত্রিশূণ্যে দাঁড়িয়ে আছে, দেখো স্বাধীন দেশের এক পরাধীন কবি,---তার পায়ের তলায় নেই মাটি হাতে কিছু প্রত্ন শষ্য, নাভিমূলে মহাবোধী অরণ্যের বীজ... তাকে একটু মাটি দাও, হে স্বদেশ, হে মানুষ, হে ন্যাস্ত –শাসন!— সামান্য মাটির ছোঁয়া পেলে তারও হাতে ধরা দিত অনন্ত সময়; হেমশষ্যের প্রাচীর ছুঁয়ে জ্বলে উঠত নভোনীল ফুলের মশাল!”~~ কবি ঊর্ধ্বেন্দু দাশ ~০~

শনিবার, ২৭ মে, ২০১৭

মাহে রমযান

                           
               ।।   রফিক উদ্দিন লস্কর ।।

আকাশ মাঝে মুচকি হাসি বাঁকা চাঁদের শোভা,
বার্তা নিয়ে এলো রমযান গায়ে লাগলো আভা।
মোদের দ্বারে বছর শেষে এলো মাহে রমযান,
রহমত বরকত মাগফিরাত স্রষ্টার মহা অবদান।
ফরজ ওয়াজিব পড়বো রোজ নফল ও সুন্নাত,
নামাজে তারাবী আছে, কতো রকম ইবাদাত।
সুখেদুঃখে খোদার রাহে জীবনটাকে রাহী করো,
মন আবেগে এই সুযোগে রোজা-নামাজ ধরো।
রোজা রেখে সরল পথে এসো ওহে মুমিন বান্দা,
আর করোনা ছল-চাতুরী ছাড়ো সকল ধান্দা।
মাফ চাইলে মাফ পাইবে এই মাসেরই ভিতরে,
রহমতের দরজা খোলা শুধুই তোমার তরে।
এই মাসেতে যে রাত, আনলো মহান কোরআন,
সে হাজার রাতের চেয়ে উত্তম, শোনো মুসলমান।
চোখের পানি ঝরাই মোরা আসলে শবে ক্বদর,
মনের মাঝে থাকে যদি কবর-কেয়ামতের ডর।
                          ----------------------
২০/০৫/২০১৭ইং
নিতাইনগর,হাইলাকান্দি(আসাম)




একটি মন্তব্য পোস্ট করুন