.“...ঝড়ের মুকুট পরে ত্রিশূণ্যে দাঁড়িয়ে আছে, দেখো স্বাধীন দেশের এক পরাধীন কবি,---তার পায়ের তলায় নেই মাটি হাতে কিছু প্রত্ন শষ্য, নাভিমূলে মহাবোধী অরণ্যের বীজ... তাকে একটু মাটি দাও, হে স্বদেশ, হে মানুষ, হে ন্যাস্ত –শাসন!— সামান্য মাটির ছোঁয়া পেলে তারও হাতে ধরা দিত অনন্ত সময়; হেমশষ্যের প্রাচীর ছুঁয়ে জ্বলে উঠত নভোনীল ফুলের মশাল!”~~ কবি ঊর্ধ্বেন্দু দাশ ~০~

শুক্রবার, ৩০ জুন, ২০১৭

বাসার গল্প




॥নীলদীপ চক্রবর্তী॥

(C)Image:ছবি
 


















র বাড়ি মগডালে ঠুনকো কাঠি বাঁশ নিয়ে ঝোলে
ওর বাসা হাঁ-মুখ ছাদ নেই আকাশের তলে

এসো কিন্তু, দেখে যেও, সাবধানে বুননের কাজ
কারিগরি কালেতে হারায় যতটুকু বেঁচে আছে আজ

ওর বাসা ভাঙ্গা ডালে জুড়ে থাকা তীব্র আশ্লেষ
ওর কিন্তু গানও আছে, শাবকের কণ্ঠে তাঁর রেশ

মহাবোধি শ্যামলিমা, পাতা-সাজ ইতিহাসে লেখা
মরমী ক্লান্ত ডানায় আছে ফুটে সেই কষ্ট রেখা

সকলেরই পাতা দিয়ে ঘর সব ঘরে ভাঙ্গা ডালপালা
সব ঘরে ভয় পাখি ওড়ে, এই হল শেষ টুকু বলা  !



একটি মন্তব্য পোস্ট করুন