.“...ঝড়ের মুকুট পরে ত্রিশূণ্যে দাঁড়িয়ে আছে, দেখো স্বাধীন দেশের এক পরাধীন কবি,---তার পায়ের তলায় নেই মাটি হাতে কিছু প্রত্ন শষ্য, নাভিমূলে মহাবোধী অরণ্যের বীজ... তাকে একটু মাটি দাও, হে স্বদেশ, হে মানুষ, হে ন্যাস্ত –শাসন!— সামান্য মাটির ছোঁয়া পেলে তারও হাতে ধরা দিত অনন্ত সময়; হেমশষ্যের প্রাচীর ছুঁয়ে জ্বলে উঠত নভোনীল ফুলের মশাল!”~~ কবি ঊর্ধ্বেন্দু দাশ ~০~

শুক্রবার, ৩১ মার্চ, ২০১৭

ধূসর কাব্য

।। অধিষ্ঠিতা শর্মা।।

(C)Image:ছবি














থে যেতে যেতে এখন আর
হোচট খাইনা আমি
তোমার করুণ বিদায়স্পর্শ
ম্লান আজ শিউলির ছায়ায়।
মাঝে মাঝে কুয়াশায় ছেয়ে যায় পথ
মহুয়াবীথির পরপারে চাঁদ ও দেখায় বিষন্ন বিধুর।
কুয়াশার ঝাপসা আবেশ অতিক্রম করে
আজও রক্তিম হয়ে ওঠে তোমার মুখ
তীব্র আঘাতের মত।
স্মৃতিভ্রম ঘটলেও কিছু দু:খ থাকে নিতান্ত অবুঝ,
নিজ উপস্থিতি জানান দিয়ে যায়
শব্দহীন মুহ্যমান পৃথিবীর কবরের পাশেও।



একটি মন্তব্য পোস্ট করুন