.“...ঝড়ের মুকুট পরে ত্রিশূণ্যে দাঁড়িয়ে আছে, দেখো স্বাধীন দেশের এক পরাধীন কবি,---তার পায়ের তলায় নেই মাটি হাতে কিছু প্রত্ন শষ্য, নাভিমূলে মহাবোধী অরণ্যের বীজ... তাকে একটু মাটি দাও, হে স্বদেশ, হে মানুষ, হে ন্যাস্ত –শাসন!— সামান্য মাটির ছোঁয়া পেলে তারও হাতে ধরা দিত অনন্ত সময়; হেমশষ্যের প্রাচীর ছুঁয়ে জ্বলে উঠত নভোনীল ফুলের মশাল!”~~ কবি ঊর্ধ্বেন্দু দাশ ~০~

সোমবার, ১২ ডিসেম্বর, ২০১৬

প্রণয় কথা

আকাশ –
যত গর্জে – তত বর্ষে না
গোড়ালি-ডুবা বৃষ্টি জলেই
ভিজছে ... গা-ঝাড়ছে
ডাকছে ... গা-ঝাড়ছে ... ভিজছে ...
দুটো শালিক গোধূলি বেলায়
মনে পড়লো -
কত হিজিবিজি সময়েও
মেয়েরা প্রণয়ের স্বপ্ন দেখে ...
বিশ্বাস-অবিশ্বাসের দীঘর্শ্বাসে
নিষিদ্ধ পল্লীর চম্পাবতী
স্বপ্ন-রাতে চুমু খায় -
কালো মেঘের প্রশস্ত বুকে
অতঃপর -
অঝোর বৃষ্টি নামে ...



একটি মন্তব্য পোস্ট করুন